২৫ এপ্রিল ২০২৪

চাঁদের কক্ষপথে ভারতের চন্দ্রযান-৩

ভারতের মহাকাশ যান চন্দ্রযান-৩ চাঁদের কক্ষপথে ঢুকে পড়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় চন্দ্রযান-৩ এর সফলভাবে চাঁদের কক্ষপথে প্রবেশের খবর দেয় ভারতের মহাকাশ সংস্থা ইসরো।

গত ১৪ জুলাই ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীহরিকোটার সতীশ ধাওয়ান মহাকাশ কেন্দ্র থেকে চন্দ্রযান-৩ এর সফল উৎক্ষেপণ হয়। আগামী ২৩ বা ২৪ আগস্ট এটি চাঁদে দক্ষিণ মেরুর কাছে একটি রোবটযান নামাতে সক্ষম হবে বলে আশা করছেন ইসরোর বিজ্ঞানীরা।

এই অভিযান সফল হলে বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে গবেষণা কাজ শুরু করতে পারবে ভারত। চাঁদের ওই অংশ সম্পর্কে এখনও খুব কমই জানে মানুষ। এর আগে কেবল যুক্তরাষ্ট্র, সোভিয়েত ইউনিয়ন ও চীনের মহাকাশযান নিরাপদে চাঁদের মাটিতে নামতে পেরেছে।

শনিবার ইসরো জানিয়েছে, চাঁদ এবং চন্দ্রযান-৩ এর মধ্যে যখন দূরত্ব সবচেয়ে কম ছিল তখনই এটি কক্ষপথ পরিবর্তন করেছে। পরবর্তীতে কক্ষপথের দূরত্ব কমানোর কাজটি করা হবে। এই দূরত্ব কমতে শুরু করবে রোববার রাত ১১টার পর থেকে।

তারপর বিজ্ঞানীরা ধীরে ধীরে গতি কমিয়ে একটি নির্দিষ্ট জায়গায় মহাকাশযানটিকে নিয়ে যাবেন, যেখান থেকে বিক্রমের অবতরণপর্ব শুরু হবে। নির্দিষ্ট সময়ে চন্দ্রযান-৩ এর অরবিটার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে চাঁদের মাটিতে নেমে যাবে ল্যান্ডার বিক্রম।

অবতরণের সময়টা হতে হবে একেবারে নির্দিষ্ট, চাঁদের কোনো এক দিনের ঠিক সূচনায়। কারণ ল্যান্ডার আর রোভারের ব্যাটারি চার্জ হতে সূর্যালোক দরকার হবে।

পৃথিবী থেকে চন্দ্রযান-৩ এর চাঁদে পৌছতে সময় লাগবে মোট ৪০ দিন। শনিবার তার মধ্যে ২২তম দিন সম্পূর্ণ হলো। রবিবার অভিযানের ২৩তম দিন।

আরও পড়ুন