২২ মে ২০২৪

নিউজিল্যান্ডের মসজিদে হামলায় ক্ষতিগ্রস্তদের ১ লাখ ডলার দিলেন সেই ‘ডিম বালক’

বাংলাধারা ডেস্ক »

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে একসঙ্গে দুটি মসজিদে সন্ত্রাসী হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত মুসলিমদের অর্থসাহায্য দিলেন সেই ‘ডিম বালক’। অনলাইনে তহবিল সংগ্রহের মাধ্যমে পাওয়া প্রায় এক লাখ ডলার অর্থ তিনি ক্ষতিগ্রস্তদের অনুদান দিয়েছেন বলে জানিয়েছে বিবিসি।

গত মার্চে ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে হামলা নিয়ে কটূক্তি করায় অস্ট্রেলীয় সিনেটর ফ্র্যাজার অ্যানিংয়ের মাথায় ডিম ভাঙেন উইল কনোলি নামে এই বালক। এরপর থেকেই সারা বিশ্বে তিনি ‘ডিম বালক’ নামে পরিচিত।   সে সময় ‘গো ফান্ড মি’ নামে একটি সংস্থা কলোনির পক্ষে আইনি লড়াই ও আরো ডিম কেনার জন্য মার্কিন ডলার সংগ্রহের তহবিল গঠনে  প্রচারণা শুরু করে।  সে সময়ই কলোনি ঘোষণা দিয়েছেন এসব অর্থ ক্রাইস্টচার্চে হামলায় ক্ষতিগ্রস্তদের দান করা হবে।

কনোলির পক্ষে আইনি লড়াই ও ডিম কেনার তহবিলে অনলাইনের মাধ্যমে অসংখ্য মানুষ আর্থিক সাহায্য পাঠান।  সেই তহবিলে তার এখন পর্যন্ত ৯৯ হাজার ৯২২ দশমিক ৩৬ ডলার জমা পড়েছে।  যার পুরোটাই তিনি অনুদান হিসেবে দিয়ে দিয়েছেন। গতকাল মঙ্গলবার ইন্সট্রাগ্রামে এক পোস্টের মাধ্যমে তিনি এ তথ্য জানান।

কনোলি লিখেন, ‘আমি আন্তরিকভাবে আশা করছি, এই অর্থ দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের কিছুটা হলেও পরিত্রাণ দেবে।’

গত মার্চে ক্রাইস্টচার্চে একসঙ্গে দুটি মসজিদে সন্ত্রাসী হামলায় ৫০ জন নিহত হন।  এর পরদিনই এক টুইটে সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিং বলেছিলেন, ‘নিউজিল্যান্ডের রাস্তায় ওই ঘটনার প্রকৃত কারণ হচ্ছে অভিবাসন কর্মসূচি, যা উগ্র মুসলিমদের নিউজিল্যান্ডে থাকার অনুমোদন দিচ্ছে।’

১৬ই মার্চ সে সিনেটর যখন মেলবোর্নে সংবাদ সম্মেলন করেন তখন ১৭ বছর বয়সী উইল কনোলি পেছন দিক থেকে সেনেটরের মাথায় ডিম ভাঙ্গেন ।এরপর সিনেটর তাকে চর-থাপ্পড় দেন। পরবর্তীতে সিনেটরের অনুসারীরা বালকটিকে ধরে ফেলেন।

গত মাসে পুলিশ কনোলির বিরুদ্ধে মামলা দাখিল না করে তাকে একটি ‘সরকারি সতর্কতা’ দেন। একইসঙ্গে সিনেটর নিজের আত্মরক্ষার জন্য কনোলিকে চর-থাপ্পড় দেন বলে জানায় পুলিশ।

বাংলাধারা/এফএস/এমআর

আরও পড়ুন