২৫ এপ্রিল ২০২৪

লোকসান দেখিয়ে খাগড়াছড়িতে গরুর মাংস ও ব্রয়লার মুরগি বিক্রি করছেনা ব্যবসায়ীরা

সরকারের বেঁধে দেওয়া দামে বিক্রিতে লোকসান হচ্ছে দাবি করে খাগড়াছড়িতে গরুর মাংস ও ব্রয়লার মুরগি বিক্রি বন্ধ রেখেছেন ব্যবসায়ীরা। সকাল থেকে খাগড়াছড়ি শহরের প্রধান বাজারে গরুর মাংস ও ব্রয়লার মুরগি বিক্রি বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে দুর্ভোগে পড়েছেন সাধারণ ক্রেতারা। ব্যবসায়ীদের দাবি, গরুর মাংস কেনা পড়ছে কেজি আনুমানিক ৮শ টাকায়।

এর মধ্যে হঠাৎ করে ৬৬৫ টাকা দাম নির্ধারণ করা হয়েছে সরকারি ভাবে। এ দরে বিক্রি করলে লোকসান হচ্ছে দেখে মাংস বিক্রি বন্ধ রাখা হয়েছে।
একই দাবি ব্রয়লার মুরগি ব্যবসায়ীদের। এদিকে ব্রয়লার মুরগি ও গরুর মাংস ছাড়াও সরকারি ভাবে নির্ধারিত মূল্যে অনেক পণ্য বিক্রি অসম্ভব বলছেন ব্যবসায়ীরা।

খাগড়াছড়ির মাংস বিক্রি সমিতির সাধারণ সম্পাদক রমজান আলী বলেন, গত তিন বছর ধরে আমরা ৭শ টাকা করে গরুর মাংস বিক্রি করছি। এখনতো সবকিছুর দাম বেশি। সেখানে যদি এখন ৬৬৫ টাকা করে বিক্রি করতে বলে তাহলে আমরা লোকসানে পরবো। তাই এটি সুরাহা না হওয়া পর্যন্ত আমরা গরুর মাংস বিক্রি করবো না।

কনজ্যুমারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ক্যাব) খাগড়াছড়ি জেলা সভাপতি সাংবাদিক আবু তাহের মুহাম্মদ বলেন, মাংস ব্যবসায়ীরা সাধারণ ভোক্তাদের জিম্মি করার চেষ্টা করছেন। প্রশাসনের উচিত এই সিন্ডিকেট ভাঙার জন্য বিকল্প চিন্তা করা।

আরও পড়ুন